বেকারত্ব দূর করার উপায়!The way to overcome unemployment

বেকারত্ব দূর করার উপায়,The way to overcome unemployment.
বেকারত্ব দূর করার উপায়,The way to overcome unemployment


আসছালামু আলাইকুম? হেলো বন্ধুরা সবাই কেমন আছেন?আসা করি করি আল্লাহর রহমতে সবাই অনেক ভালো আছেন।
আজকে একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে আলোচনা করবো,
সবাই সম্পর্ন পোস্টটি মনোযোগ দিয়ে পড়বেন।
আসা করি একটু হলেও উপকার হবে।
যদি আমার এই পোস্টের দ্বারা একজনের ও সামান্য উপকার হয় তাহলে আমার লেখাটা স্বার্থক হবে।

আজকে আমরা বেকারত্ব সমস্যা সমাধান নিয়ে আলোচনা করবো।

এই পোস্টটি আমাদের জন্য জন্য খুবই জরুরী, আমাদের দেশে দিন দিন বেকারত্বের সমস্যা বেরেই চলেছে।
সমাস্যা বারতেছে কিন্তু সমাধান হচ্ছে না।
একটা চাকরির খবর পেলে হাজার হাজার লোক এটার জন্য Apply করে। হাজারের মধ্যে  ১০ জনের চাকরি মিলে তাও অনেক কস্টের বিনিময়ে আর বাকি ৯৯০ জন।
হতাশায় ভোগে। আর এই চাকরির নামে কোম্পানি গুলো ফিস বাবত নিয়ে নিচ্ছে কোটি কোটি টাকা যার বিনিময়ে চাকরি পাচ্ছে মাত্র ১০ জন, যে টাকা আমরা সবাই ফি দেই এটার সম পরিমান চাকরি দিলে মোটামুটি একটু বেকারত্ব দুত হত।চাকরি তো হয় না মধ্যখানে কোম্পানি গুলো চাকরির অপার দিয়ে লুটে নেয় কোটি কোটি টাকা।
আসুন এই বেকারত্ব থেকে কি করে বেরিয়ে আসা যায় এ নিয়ে আলোচনা করা যাক।প্রথমে জানতে হবে।

©বেকারত্ব  কাকে বলে?


®বেকারত্ব বলা হয় একজন মানুষ যখন লেখাপড়া করে তার পেশা অনুযায়ী কাজ খুজে পায় না তখন তাকে বেকারত্ব বলা হয়।সাধারণত কর্মহীনতাকে বেকারত্ব বলে।
যার কোন কাজ নাই বেকার সারাদিন ঘুরে বেরায় আড্ডা মারে আমরা তাকে দেখে ও বেকার বলি।


©বেকারত্ব কি করে তৈরি হয়?

®সাধারণত শিক্ষিত লোক যখন তার লেখাপড়া  অনুযায়ী চাকরি পায় না।১০০০০ জন একটি চাকরিত জন্য apply করার পর মাত্র ১০ জন চাকরি পায়।তখন  ঐ ৯৯০ জন অন্য কোন পেশায় নিয়োজিত না হয়ে  চাকরি না পাওয়ার কারনে হতাশ হয়ে ঘুরে বেরায় তখন বেকারত্ব বেরে যায়।

চাকরি পাননি তো কি হয়ে,হাজার হাজার কাজ আছে ব্যবসা আছে এইসব করতে পারেন তা না করে চাকরি আসায় বসে থাকার কারনে বেকারত্ব তৈরি হয়।
বেকার সমস্যা সমাধানের উপায়
এখানে আপনাকে কোন চাকরি খবর দেওয়া হবে না।
কিছু গুরুত্বপূর্ণ কথা বলবো যদি আপনি সেই অনুযায়ী চলেন তাহে বেকারত্ব দূর হবে।

আমরা জানি যে আমাদের দেশে সব চাইতে বেকারত্ব সংখ্যা বেশি।আমাদের দেশে কলকারখানা অনুযায়ী আমাদের দেশে জনসংখ্যা বেশি।অনেকে আবার চাকরি না পেয়ে আত্নহত্যাও করে ফেলে।এটা আসলে আমাদের জন্য খুবই দুঃখ্যজনক।বেকার থাকলে জিবনের প্রতি আস্তা চলে যায়,এটা যারা বেকার শুধু তারাই জানে।
আমি আসলে মুলত যে ব্যাপার নিয়ে আলোচনা করতে যাচ্ছি আমরা যারা বেকার রয়েছি সেখানে আমরা সবাই শুধু চাকরির পরে পিচনে ছুটি।আসলে আমরা ঐটা চিন্তা করি না যে নিজে থেকে কিছু একটা করি নিজে উদ্দোক্তা হই।আমরা অনেকে Youtube Facebook  এ এই রকম অনেক মানুষ দেখি যারা এই রকম উদ্যোগ নিয়ে সফল হয়েছে।অনেক উদ্দোক্তা রয়েছে আমরা তাদের বই পড়ে বা YouTube  এ video দেখে তাদের কাজ থেকে কিছু জানতে পারি শিখতে পারি।

আপনারা পড়ছেন blognet24.com এ বেকারত্ব দূর করার উপায়

আসলে আমি আপনাদের কিছু Motivational কিছু করতে বলতে পারবো এখানে কিন্তু যদি আপনি সেই কথা  Receive না করেন তাহলে এটা দিয়ে আমি আপনাদের উপকার করতে পারলাম না।সবাইকে বলি অবশ্যই নিজের লাইফে একবার উদ্দোক্তা হবার ট্রাই করিয়েন।
আসা করি লাইফে কিছু একটা কর‍তে পারবেন।
আমার এটা বলার উদ্দেশ্য একটা যাতে আপনারা নিজের লাইফ গোছাতে পারেন।আমাদের আসলে এখানে অনেকের আর্থিক অবস্তা ভালো না,আবার অনেকের অবস্তা অনেক ভালো রয়েছে।আমরা যদি সবাই চাকরির পিচনে না ছুটি।চেস্টা করি নিজে কিছু করার।
আসলে নিজে কি করবো,আপনি যদি আমাদের আশে পাশে যারা Success মানুষ তাদের যদি দেখেন।তারা কিন্তু খুব কম মানুষ যারা চাকরি করি success হয়েছে।

চাকরি করলে তো মাসের বেতন মাসেই শেষ হয়ে যায়।
তো আপনি কি করবেন।করার অনেক কিছু আছে।
শুধু আপনার ইচ্ছাশক্তি মজবুত হতে হবে।
একবার চেস্টা করে যদি হেরে বসে থাকেন তাহলে লাইফে কিছু করতে পারবেন না।সুতরাং আগে ইচ্ছাশক্তিকে মজবুত করতে হবে তারপর নিজে কিছু করার জন্য মাঠে নামতে হবে।আপনি যে কাজ করতে চান সেউ বিষয়ে আগে কিছু অভিজ্ঞতা নিয়ে নিবেন।
যেমন আপনি চাইলে ফলের চাষ কর‍তে পারেন।
Youtub এ নিয়ে অনেক video পাবেন।
কোন ফল চাষ করতে ভালো ফলন হবে সেটা ও জানতে পারবেন।আপনি চাইলে মাছ চাষ করে করতে পারেন।
এই জন্য বেশি টাকা ও লাগবে না।
অল্প টাকায় অল্প পরিশ্রমে লাভবান হবে।তার পাশাপাশি আপনি চাইলে মুরগির খামার করতে পারেন।
ছাগলের খামার করতে পারেন।এটায় ও আপনি লাভবান হতে পারবেন।আমরা যদি এইসব করতে পারি তাহলে নিজে ও চাকরি কর‍তে হবে না।
অন্যদের আমরা নিজে চাকরি দিতে পারবো।
চাইলে অনেক কিছু করা যায় আমরা অনেকে এইসব করি না আমরা মনে করি এইসব লজ্জার কাজ।
আরে ভাই একবার লজ্জাকে মাঠি দিয়ে কাজে নেমে পড়ুন। যখন সফল হবেন তখন লোকেরা আপনাকে দেখে বাহবা দিবে।লাইফে success হতে হলে কোন কাজকে ছোট মনে করা যাবে না।
অন্তত একবার চেস্টা করে দেখুন,আপনি শিখিত অশিক্ষিত নারি বা পুরুষ যাই হন না কেনো।
নিজের অবস্তানে থেকে,আগে ঠিক করুন আপনি কি করবেন।এর পর এই কাজের মাধ্যমে বেকারত্ব গোছানোর চেস্টা করুন।মনে রাখুন হতাশা আপনার সম্ভাবনাকে দিরে দিরে গলাটিপে হত্যা করতেছে।তাই একে প্রস্র‍য় না দিয়ে আপনার আত্নবিশ্বাসকে প্রতিদিন জাগিয়ে তুলুন।

আপনারা পড়ছেন blognet24.com এ বেকারত্ব  সমস্যা সমাধান ।


প্রতিদিন কিছু না কিছু করার চেস্টা করুন।
সমাধানের রাস্তা খুজুন।কি করলে আপনার বেকারত্ব যাবে।সেটা খুজুন সেই কাজ ছোট হোক বা বড়।
এটির দিকে না চেয়ে বেকারত্ব এর দিকে চান।
চাকরির পিচনে ঘুর ঘুরে সময় না করে নিজে উদ্দোক্তা হবার চেস্টা করুন।অল্প কিছু দিয়ে হলে ও শুরু করুন।
অগোছালো জিবনে অগোছালোভাবে চলাফেরা বাদ দিন।
এতে হতাশা কমবে না আরো বারবে।
এই দুদিয়া সবারই হতাশা আছে কারো কম কারো বেশি।
ভালো সময় আপনার জন্য অপেক্ষা করছে।
আপনি শুধু একটি চেস্টা করলেই হয়ে যাবে।
ভালো থাকুন
সুস্থ থাকুন
অগোছালো জীবন গোছিয়ে ভালো কিছু করুন।
আল্লাহ হাফিজ।

Post a Comment

0 Comments